এই ৭ টি উপায়ে আপনি আপনার মোবাইলের অতিরিক্ত MB খরচ কমাতে পারবেন।

আধুনিক মোবাইল ফোনের আধুনিক সব সুযোগ সুবিধা ভোগ করতে হলে আপনাকে অবশ্যই ইন্টারনেটের সাথে যুক্ত থাকতে হবে।

কিন্তুু দেখা যায় যে, নির্দিষ্ট সময়ের আগেই আমাদের অনেকের মোবাইলের MB শেষ হয়ে যায়।

এমবি দ্রুত শেষ হওয়ার পিছনে অনেক কারণ রয়েছে।

কিন্তুু আমরা যদি কিছু সেটিংস পরিবর্তন করি এবং সেই সাথে নিজেরাও একটু সতর্ক হই তাহলে আমরা আমাদের মোবাইলের অতিরিক্ত mb খরচ কমাতে পারবো।

1. ডাটা সেভার চালু রাখা

মোবাইলে অতিরিক্ত mb খরচ কমাতে আপনার মোবাইলের Data Saver সেটিংসটি চালু করে রাখুন। এতে করে আপনি যখন ইন্টারনেট সংযোগ করে নাটক, গান, ছবি বা ফেসবুকে আড্ডা দিবেন তখন আপনার মোবাইলে তেমন বেশি mb খরচ হবে না।

Data saver সেটিংসটি চালু করতে হলে আপনাকে আপনার মোবাইলের Network সেটিংস এ যেতে হবে। এবং সেখান থেকে data saver অপশনটি খুঁজে চালু করে দিতে হবে।

2. ডাটা খরচ লিমিটেশন 

কিছু কিছু স্মার্টফোনে ডাটা খরচ কমানোর জন্য একটা নির্দিষ্ট সেটিংস থাকে। এর মাধ্যমে আপনি চাইলে প্রতিদিনের ব্যবহারের জন্য নির্দিষ্ট পরিমাণ কিছু mb নির্ধারণ করতে পারেন।

ফলে আপনার মোবাইলে ঔ দিনে ঔ নিদিষ্ট পরিমান এমবি ছাড়া বাড়তি কোনো MB খরচ হবে না।

এই সেটিংসটির নাম হলো data limit. এটি ব্যবহার করতে চাইলে আপনি আপনার মোবাইলের Data সেটিংস এ গিয়ে এটি খুঁজে নিতে পারেন।

3. অটো অ্যাপ আপডেট বন্ধ করুন

আমরা প্রতিনিয়ত নানা ধরনের অ্যাপস ব্যাবহার করি। বিভিন্ন সময় এসব অ্যাপস আপডেট করার প্রয়োজন পড়ে। আবার আমাদের মোবাইলে এমন কিছু অ্যাপস আছে যেগুলো আমরা না চাওয়া সত্ত্বেও নিজে থেকেই আপডেট হয়।

ফলস্বরূপ, মোবাইলে প্রচুর mb খরচ হয়ে যায়।তাই mb খরচ কমাতে অটো অ্যাপ আপডেট বন্ধ করে রাখুন।

এটি বন্ধ করার জন্য আপনাকে Google Play Store এ যেতে হবে। সেখান থেকে Apps সেটিংস এ গিয়ে অটো আপডেট সেটিংসটি অপ করে দিতে হবে।

4. ডাটা কনজিউমিং অ্যাপ অপটিমাইজেশন

আমাদের মোবাইলে আমরা প্রতিদিন এমন কিছু অ্যাপস ব্যবহার করি যেগুলোতে প্রচুর পরিমাণ mb খরচ হয়। আর এই অ্যাপস গুলো হলো ইউটিউব, টিকটক,লাইকি,ইনস্টাগ্রাম, ফেসবুক ইত্যাদি আরও নানা ধরনের অ্যাপস।

কিন্তুু আপনি যদি চান তাহলে এই অ্যাপস গুলোর ডাটা খরচ কমাতে অ্যাপসগুলো কাস্টোমাইজেশন করে নিতে পারেন। এতে করে মোবাইলে কম mb খরচ হবে।

5. অ্যাপস ব্যাকগ্রাউন্ড ডাটা বন্ধ করুন

মোবাইলে mb কম খরচ করার আরও একটি চমৎকার উপায় হলো এটি। সাধারণত সব অ্যাপস ব্যবহার করতে ইন্টারনেটের প্রয়োজন হয় না।

কিন্তুু আমাদের মোবাইলে এমন কিছু অ্যাপস আছে যেগুলোর ব্যাকগ্রাউন্ডে ডাটা খরচ হয়। আমরা যখন মোবাইলের ডাটা কানেকশন অন করি ঔ অ্যাপসগুলো ব্যাক গ্রাউন্ডে প্রচুর MB কাটে। আপনি চাইলে এই অ্যাপসগুলোর ব্যাক গ্রাউন্ড ডাটা অপ করে দিতে পারেন।

ব্যাক গ্রাউন্ড ডাটা অপ করার জন্য আপনাকে প্রথমে আপনার স্মার্টফোনের Apps স্টোরে যেতে হবে। সেখানে যাওয়ার পর আপনি কিছু ব্যাক গ্রাউন্ড অ্যাপস দেখতে পাবেন।

সেখান থেকে আপনি যেই অ্যাপসগুলোর ব্যাকগ্রাউন্ড ডাটা অপ করতে চান সেগুলোর Data usage অপশনে ক্লিক করলে Background mobile data নামে একটা সেটিংস থাকবে এটি অপ করে দিলেই আপনার মোবাইলের কিছুটা mb খরচ কমে যাবে।

6. অপ্রয়োজনে মোবাইল ডাটা চালু রাখা

মোবাইল ব্যবহারের পর অযথা মোবাইলের ডাটা কানেকশন চালু করে রাখবেন না।

মোবাইলে ডাটা কানেকশন চালু করে রাখলে ধীরে আপনার মোবাইলের mb খরচ হয়ে যেতে থাকবে৷ আর এই mb খরচ এড়াতে ব্যবহারের পর মোবাইলে data অপ করে রাখুন।

7. অপ্রয়োজনে ভিডিও, বিভিন্ন ধরনের অ্যাপস ইত্যাদি ডাউনলোড বন্ধ করুন

আমাদের মধ্যে অনেকেই আছে যারা অপ্রয়োজনে মোবাইলে শুধু ভিডিও ডাউনলোড দিতে থাকে।

ফলে ডাটা কানেকশন চালু করার সাথে সাথে ভিডিও গুলো ডাউনলোড হতে শুরু করে এবং এর ফলে মূহুর্তের মধ্যেই অনেক mb খরচ হয়ে যায়।