মোবাইলের জন্য অত্যাধিক প্রয়োজনীয় ৮ টি অ্যাপস।

প্রতিনিয়ত বিভিন্ন Apps Developer রা নতুন নতুন apps দিয়ে Google PlayStore কে ভরিয়ে তুলছে। কিন্তু সব সফটওয়্যার আমাদের প্রয়োজনে লাগে না। কিছু সফটওয়্যার আছে, যেগুলা আমাদের মোবাইল ফোন এর ক্ষতি করে। আবার কিছু সফটওয়্যার আছে, যেগুলা ছাড়া মোবাইল ফোন use করে তেমন মজাই পাওয়া যায় না।

যাইহোক, আজকের এই আর্টিকেল এ আমরা এমন কিছু আপস সমন্ধে জানব, যেগুলো আপনার ফোন ব্যাবহার করার Experience আর বাড়িয়ে তুলবে।

1. Google lence ( গুগল লেন্স)

Google Lence হলো এমন একটি পাওয়ার পুল অ্যাপ্লিকেশন যার মাধ্যমে আপনি যে কোনো বিষয়ে খুব সহজেই ধারণা লাভ করতে পারবেন। যেমন ধরেন আপনি ফেসবুকে একটা ফটো পেলেন। কিন্তু ফটোটা কার বা কি সম্পর্কে, সেটা আপনি জানেন না।

এক্ষেত্রে তখন আপনি গুগল লেন্স ব্যাবহার করে সেই ছবিটি সম্পর্ক বিস্তারিত জানতে পারবেন। এই ছাড়া আপনি ইংরেজি বই পড়ার সময় অর্থ না বুঝলে বা আপনার গাইড না থাকলে আপনি ঐ পড়ার ছবি তুলে সার্চ করলে পুরো বাংলা অর্থ চলে আসবে।

2. Shazam ( শাহ জম)

এই অ্যাপ্লিকেশন হলো এমন একটি গুরুত্বপূর্ণ অ্যাপস যেটির ব্যাবহার করে আপনি আপনার পছন্দের যেকোনো গান ও গজল ডাউনলোড করতে পারবেন। কখনো কখনো এমন হয় যে আমরা যখন রাস্তা দিয়ে হেটে যাই তখন আমাদের পাশের কেউ গান বা গজল চালায়।

তখন আমরা ঐ গান বা গজলের প্রেমে পড়ে যাই। কিংবা আমাদের পাশের বাড়ির কেউ সুন্দর গান বা গজল চালালে আমরা ও তা শোনা বা দেখার আগ্রহ প্রকাশ করি। সেক্ষেত্রে আপনি Shazam অ্যাপটি চালু করে রেকর্ড সার্চ করলে ঐ গান বা গজলটি সহজেই খুঁজে পাবেন।

আরও পড়ুনঃ মোবাইল হ্যাং হলে আপনাকে যা যা করতে হবে।

3. Notification History log ( নোটিফিকেশন হিস্ট্ররি লগ)

আমাদের মোবাইলে অনেক ধরনের নোটিফিকেশন আসে। এর মধ্যে প্রয়োজনীয় অপ্রয়োজনীয় দুটোই থাকতে পারে। কিন্তু অনেক সময় দেখা যায় আমরা অপ্রয়োজনীয় নোটিফিকেশন গুলো ডিলেট করতে গিয়ে প্রয়োজনীয় নোটিফিকেশন গুলোও ডিলেট করে ফেলি।

কিংবা কিছু নোটিফিকেশন ডিলেট করার পর অনেক সময় পরে প্রয়োজন হয়। কিন্তু সেগুলো আর পাওয়া যায় না। যার ফলে অনেকেই  বিভিন্ন সমস্যা স্বীকার হয়। এক্ষেত্রে Notification History log অ্যাপটি আপনার মোবাইলে চালু  থাকলে সেখানে কেটে দেওয়া সবগুলো নোটিফিকেশন সংরক্ষিত থাকবে। এতে করে আপনাকে বিপর্যয়ের স্বীকার হতে হবে না।

4. Google Drive ( ড্রাইভ)

আমরা প্রয়োজনে অপ্রয়োজনে কিংবা শখের বসে অনেেকেই অনেক ধরনের ছবি তুলে থাকি। অনেক সময় দেখা যায় মোবাইলে ম্যালওয়ারের আক্রমণের কারণে কিংবা মোবাইলে প্লাস দেওয়ার কারণে মোবাইলে থাকা সবগুলো ফাইল ও ফটো ডিলেট হয়ে যায়।যেটি আমাদের জন্য খুবই দুঃখজনক।

তাই যেন আকস্মিক কোনো কারণে আমাদের প্রিয় ফটোগুলো ডিলিট না হয় সেই জন্য আপনি আপনার প্রিয় ও প্রয়োজনীয় ফটোগুলো Drive এ সংরক্ষণ করে রাখতে পারেন। এতে করে আকস্মিক কোনো দুর্ঘটনা আপনার মোবাইলে থাকা প্রীয় ও প্রয়োজনীয় ফটোগুলোর উপর প্রভাব পড়লে ও ড্রাইভে সংরক্ষিত থাকা ফটোগুলোর কোনো ক্ষতি হবে না।

5. Google translate

এই অ্যাপটি সাধারণত এক ভাষাকে অন্য যে কোনো ধরনের ভাষায় রুপান্তর করতে ব্যাবহৃত হয়। এটি আমরা সবাই কম বেশী ব্যাবহার করতে জানি। তারপর ও একটু বিস্তারিত বলে রাখি।

Google translate হলো এমন একটি অ্যাপ যেখানে আপনি বাংলাকে ইংরেজিতে, বাংলাকে আরবিতে, ইংরেজিকে আরবিতে এইভাবে যেই ভাষায় রুপান্তর করতে চাইবেন, সেই ভাষায় পরিবর্তন করতে পারবেন।

এর ফলে সহজেই আমরা অন্য দেশের নাগরিকের সাথে যোগাযোগ করতে পারি। এছাড়া এটি যেকোনো ভাষা শেখার ক্ষেত্রে ও গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা পালন করে।

6. LastPass

এটি এমন একটি Apps যেখানে আপনি আপনার সবগুলো একাউন্টের পাসওয়ার্ড সেভ করে রাখতে পারবেন। অনেক সময় দেখা যায় আমরা অনলাইনে একাধিক একাউন্ট খুলি, কিন্তু এদের সবগুলোর পাসওয়ার্ড মনে রাখতে পারিনা। এক্ষেত্রে এইapps ধারুন কাজে দিবে।

আপনি এখানে সবগুলো পাসওয়ার্ড নিরাপত্তার সাথে সেভ করে রাখতে পারেন। এর আরও একটা সুবিধা আছে, আর সেটি হলো আপনি যদি ফেসবুক পাসওয়ার্ড সেভ করে রাখেন তবে আইডি লগইন এর সময় শুধু নাম্বার বা ইউজার নেম দিলেই পাসওয়ার্ড আপনা আপনি লগইন হয়ে যাবে। তবে LastPass অ্যাপটি কিভাবে ব্যাবহার করতে হবে তা আমাদের পরবর্তী পোস্টে পাবেন।

7. Patient aid

এই অ্যাপসটি আপনাকে মেডিকেল অর্থাৎ চিকিৎসা সংক্রান্ত যেকোনো বিষয় সম্পর্কে জানতে সাহায্য করবে। যে কোনো ডাক্তারের নাম, মোবাইল নাম্বার, কোন ঔষধের মূল্য, এর কাজ কি, এর কোনো পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া আছে কিনা, কিভাবে সেবন করতে হবে ইত্যাদি সবগুলোই জানতে পারবেন এই অ্যাপসের মাধ্যমে।

এছাড়া হঠাৎ করে কেউ অসুস্থ হয়ে গেলে এর মাধ্যমে দ্রুত প্রাথমিক চিকিৎসা নিতে পারবেন। তাই এই অ্যাপসটি আপনার মোবাইলের জন্য অত্যধিক গুরুত্বপূর্ণ। এছাড়া ও এতে আরো কিছু সুবিধা আছে। যেমনঃ দ্রুত রক্ত সংগ্রহ, রোগীর জন্য অ্যাম্বুলেন্স ডাকা ইত্যাদি।

8. Dumpster

আপনার ডিভাইস অর্থাৎ মোবাইল থেকে যদি ভূলবশত কোনো ফাইল, ইমেজ কিংবা ডকুমেন্টস ডিলেট হয়ে যায়, তবে সেটি এই অ্যাপসে জমা হয়ে থাকবে। মোবাইলে আমাদের প্রয়োজনীয় অনেক কিছুই থাকে, যেগুলো হারিয়ে যাওয়া উচিত নয়।

কিন্তু দেখা যায় ভুলবশত আমরা নিজেরাই তা ডিলেট করে দেই এবং পরে না পেয়ে হতাশায় পড়ি। তাই এমন পরিস্থিতি থেকে বাঁচার জন্য আপনি Dumpster অ্যাপটি ইন্সটল করে রাখতে পারেন। এতে করে আপনার ফোন থেকে কোনো ফাইল বা ডকুমেন্ট হারিয়ে গেলে তা ব্যাকআপ পেয়ে যাবেন।

আশা করি উল্লেখিত অ্যাপসগুলো যদি আপনারা আপনাদের মোবাইলে রাখেন তাহলে উপকৃত হবেন। মনে রাখবেন অপ্রয়োজনীয় অ্যাপস মোবাইলে না রাখাই ভালো। এতে আপনার মোবাইলের মেমোরিতে অনেকটা জায়গা খালি থাকবে, যা আপনার মোবাইলের গতি বাড়াবে।

আরও পড়ুন:

মোবাইল দিয়ে এনআইডি কার্ড সংশোধন করার নিয়ম 

মোবাইল দিয়ে এনআইডি কার্ড বের করার নিয়ম 

মোবাইল দিয়ে ট্রেনের টিকেট বুকিং করার নিয়ম

মোবাইল দিয়ে রেজাল্ট দেখার নিয়ম (marksheet সহ)

 

 

Leave a Comment